২০ শতাংশের কম জনসমর্থন নিয়ে সংসদে যাচ্ছেন ৭২ জন

সংসদীয় আসনের মোট ভোটারের ২০ শতাংশের কম সমর্থন নিয়ে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন ৭২ জন। এর মধ্যে মোট ভোটের ১০ শতাংশের কম পেয়েছেন দুজন। অবশ্য প্রদত্ত ভোটের হিসাব ধরলে তাঁদের ভোট আরও বেশি।

এবারের নির্বাচনে ভোট পড়েছে প্রায় ৪২ শতাংশ। যদিও ভোটের এই হার নিয়েও সন্দেহ ও প্রশ্ন আছে। নির্বাচন বিশ্লেষকেরা বলছেন, এভাবে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হতে আইনে কোনো বাধা নেই। দেশের আইন অনুযায়ী বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হওয়াও বৈধ। কিন্তু এত কম জনসমর্থন নিয়ে জনপ্রতিনিধি হওয়ার মধ্য দিয়ে প্রকৃত গণতন্ত্র বা জনমতের সম্মতির শাসন কতটুকু প্রতিষ্ঠিত হচ্ছে, তা নিয়ে প্রশ্ন ওঠার সুযোগ থাকে।

২০০৮ সালের নির্বাচনে ২৩০ আসনে জয় নিয়ে আওয়ামী লীগ সরকার গঠন করেছিল। সেবার দলটির বিজয়ী প্রার্থীদের কেউ নির্বাচনী এলাকার মোট ভোটারের ৩২ শতাংশের নিচে ভোট পাননি। দলটি ২৩০ জনের মধ্যে ২১৭ জন নির্বাচনী এলাকার মোট ভোটের ৪০ থেকে ৮৪ শতাংশ পর্যন্ত ভোট পেয়েছিলেন।

নবম সংসদের পরের দুটি নির্বাচন নিয়ে রাজনৈতিক অঙ্গনে বিতর্ক আছে। ২০১৪ সালের দশম সংসদ নির্বাচন বর্জন করেছিল বিএনপি। ওই নির্বাচনে আওয়ামী লীগসহ মিত্র দলের ১৫৩ জন সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছিলেন বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়। ২০১৮ সালের একাদশ সংসদ নির্বাচনে সব দল অংশ নিলেও নির্বাচনটি নিয়ে প্রশ্ন আছে। সব নির্বাচনের পর নির্বাচন কমিশন (ইসি) ভোটের ফলাফল নিয়ে বিস্তারিত প্রতিবেদন প্রকাশ করে। কিন্তু ওই নির্বাচনের পর ইসি কোনো প্রতিবেদন প্রকাশ করেনি।

বিশ্লেষকেরা বলছেন, ২০১৪ সালের জাতীয় নির্বাচনের পর থেকে মূলত ভোটের প্রতি একধরনের অনাগ্রহ তৈরি হতে থাকে। বিভিন্ন নির্বাচনে নানা অনিয়ম ও জবরদখলের ঘটনায় নির্বাচনব্যবস্থা ও ইসির প্রতি মানুষের আস্থা নষ্ট হয়েছে। ফল নির্ধারণে ভোটারদের গুরুত্ব নেই, প্রধান রাজনৈতিক প্রতিদ্বন্দ্বী বিএনপি নির্বাচনে না থাকায় আওয়ামী লীগ যাঁদের মনোনয়ন দেবে, তাঁরাই জয়ী হবেন।

৭ জানুয়ারি অনুষ্ঠিত সংসদ নির্বাচনেও ভোটার উপস্থিতি ছিল কম। নির্বাচনে বিজয়ীরা ইতিমধ্যে সংসদ সদস্য হিসেবে শপথ নিয়েছেন। ইসি ঘোষিত ২৯৮টি আসনের ভোটের ফলাফল বিশ্লেষণ করে দেখা গেছে, ২০ শতাংশের কম জনসমর্থন পাওয়া ৭২ জন প্রার্থীর মধ্যে ৩৭ জন আওয়ামী লীগের নৌকা প্রতীক নিয়ে জয় লাভ করেছেন। বাকিদের মধ্যে ২৮ জন স্বতন্ত্র, জাতীয় পার্টির ৬ জন ও কল্যাণ পার্টির একজন সংসদ সদস্য রয়েছেন।

The post ২০ শতাংশের কম জনসমর্থন নিয়ে সংসদে যাচ্ছেন ৭২ জন appeared first on Insurance.

The post ২০ শতাংশের কম জনসমর্থন নিয়ে সংসদে যাচ্ছেন ৭২ জন appeared first on Insurance.

The post ২০ শতাংশের কম জনসমর্থন নিয়ে সংসদে যাচ্ছেন ৭২ জন appeared first on Insurance.

The post ২০ শতাংশের কম জনসমর্থন নিয়ে সংসদে যাচ্ছেন ৭২ জন appeared first on Insurance.

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top